১০০/= (একশত) টাকা মুল্যমান বাংলাদেশ প্রাইজবন্ডের ১০৮তম ‘ড্র’-এর ফলাফল

কর্তৃক সরকারি আদেশ
0 মন্তব্য 521 views

অদ্য ১৬ শ্রাবণ, ১৪২৯ বঙ্গাব্দ/৩১ জুলাই, ২০২২ খ্রিস্টাব্দ তারিখে ঢাকা বিভাগের বিভাগীয় কমিশনার জনাব মোঃ খলিলুর রহমানের সভাপতিত্বে ঢাকা বিভাগীয় কমিশনার অফিসের সম্মেলন কক্ষে ১০০/- (একশত) টাকা মূল্যমান বাংলাদেশ প্রাইজবন্ডের ১০৮তম ‘ড্র’ অনুষ্ঠিত হয়। একক সাধারণ পদ্ধতিতে (অর্থাৎ প্রত্যেক সিরিজের জন্য একই নম্বর) এই ‘ড্র’ পরিচালিত হয় এবং বর্তমানে প্রচলনযোগ্য ১০০/- (একশত) টাকা মূল্যমানের ৬৯ (ঊনসত্তর) টি সিরিজ যথা- কক, কখ, কগ, কঘ, কর, কচ, কছ, কজ, কঝ, কথা, কট, কঠ, কড, কঢ, কথ, কদ, কন, কপ, কফ, কব, কম, কল, কশ, কা, কস, কহ, খক, খঢ, খথ, খদ, খন, খপ, ‍ , গ, চ, ছ, গঞ্জ, গৰু, গরু, গট, গঠ, ড, ঢ, পথ, গন এবং গন এই ‘ড’-এর আওতাভুক্ত। উপর্যুক্ত সিরিঞ্জ সমূহের অন্তর্ভুক্ত ৪৫ (ছেচল্লিশ) টি সাধারণ সংখ্যা পুরস্কারের যোগা বলিয়া ঘোষিত হয় এবং নিম্নবর্ণিত সংখ্যার প্রাইজবন্ডগুলি সাধারণভাবে প্রত্যেক সিরিজের ক্ষেত্রে পুরস্কারের যোগ্য বলিয়া বিবেচিত হন। উদাহরণষরূপ: প্রাইজবন্ডের যে সংখ্যা প্রথম পুরস্কারের জন্য ঘোষিত হইয়াছে, সেই সংখ্যার প্রাইজবন্ড উল্লিখিত প্রতিটি সিরিজের প্রথম পুরস্কারের যোগা বলিয়া বিবেচিত হইবে। অনুরূপভাবে ২য়, ৩য়, ৪র্থ ও ৫ম পুরস্কারের জন্য ঘোষিত সংখ্যাও তাহাদের মান অনুযায়ী প্রতিটি সিরিজের ক্ষেত্রে পুরস্কার পাওয়ার যোগ্য। উল্লেখ্য, ”-এর নির্ধারিত তারিখ হইতে ৬০ (ষাট) দিন পূর্বে (বিক্রয়ের তারিখ ধরিয়া এবং “ড’-এর তারিখ বাদ দিয়া) যে সমস্ত প্রাইজবন্ড বিক্রয় হইয়াছে, সেইগুলি এই ‘ড’-এর আওতায় আসিনে। প্রসঙ্গত, আয়কর অধ্যাদেশ-১৯৮৪ এর ৫৫ ধারার নির্দেশনা অনুযায়ী ১ জুলাই, ১৯৯৯ হইতে প্রাইজবন্ড পুরস্কারের অর্থ হইতে ২০% হারে উৎসে কর কর্তন করিবার বিধান রহিয়াছে।

 

রিলেটেড আরও পোস্ট

মতামত দিন

error: Content is protected !!